Mr_Faisu টিকটক সাসপেন্ড না তুললে আগুনে ঝাঁপ দিয়ে জহরব্রত পালনের হুমকি কিছু মেয়ের

গোটা দেশ সুনসান, চারিদিকে নিস্তব্ধতা। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেলিব্রিটি তথা গোটা ভারতের মেয়েদের মনের আলোড়ন তোলা টিকটক সুপারস্টার Faisu_07 টিম। গত রবিবার তার টিকটক অ্যাকাউন্ট ব্যান করে দেয় টিকটক কর্তৃপক্ষ। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ সাম্প্রদায়িক হিংসা বিদ্বেষ ছড়ানোর।

জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়ায় ছোটোছোটো ভিডিও, মুজরা নাচ, লিপ সিঙ্কিং ভিডিও বানানোর অ্যাপ টিকটক। সেখানে প্রায় ২৪ মিলিয়ন ফলোয়ার ছিলো এই কদিনেই খ্যাতি পাওয়া স্লিব্রিটি ফইসু_০৭। সেই সমেত হঠাত একাউন্ট সাসপেন্ড হওয়ায় রীতিমত ভেঙ্গে পড়েছেন তার ফ্যানেরা।

গত শনিবার নাগাদ একটি ভিডিও ভাইরাল হয় যেখানে ফইসু আর তার ০৭ টিম একটি ভিডিও প্রকাশ করে যেখানে তোলা হয় ঝাড়খন্ডে সাম্প্রতিক জনরোষে খুন হওয়া তাবরেজ আন্সারীর নাম। ভিডিওতে ফইসু আর তার টিমের বক্তব্য, “যেভাবে তাবরেজ আনসারী হত্যা হয়েছে, একই ভাবে যদি তাবরেজের ছেলে বড়ো হয়ে বাবার হত্যার বদলা নেয়, তাহলে বলো না যেন মুসলিম সন্ত্রাসবাদী”

এভাবে একটু উস্কানিমূলক ভিডিওতে সরব হয় গোটা দেশ, মুহুর্তে তার ভিডিও ডিলিট করা হয় এবং পরে একাউন্ট সাসপেন্ড করে দেয় কর্তৃপক্ষ, FIR করা হয় থানায়। এই ঘটনার পর ভিডিও বের করে ক্ষমা চেয়েছে তাদের টিম।

এর মধ্যেই ফেসবুকে কিছু গ্রুপে এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদে মেয়েরা সরব হয়েছে। তারা মোমবাতি মিছিল থেকে শুরু করে নানার প্রতিবাদ করছে তারা। “ফইসু আমাদের টিকটক দেবতা, ওর একাউন্ট না ফিরলে প্রয়োজনে জহরব্রত করবো” দাবী এক মেয়ের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *